টিপস

অনলাইনে ইসলামি ব্যাংক একাউন্ট খোলার নিয়ম (অ্যাপ, ওয়েবসাইট)

আপনি কি ব্যাংক একাউন্ট খুলতে চান? টাকা সেভিং এর জন্য অবশ্যই আপনাকে ব্যাংক একাউন্ট খোলা প্রয়োজন। বাংলাদেশের সরকারি বেসরকারি বেশ কয়েকটি ব্যাংক রয়েছে এ সকল ব্যাংকে আপনি আপনার একাউন্ট খুলে টাকা সঞ্চয়সহ নানা ধরনের অ্যাকাউন্ট খুলতে পারেন। আজকের এই অনুচ্ছেদে ইসলামী ব্যাংক একাউন্ট খোলার নিয়ম সম্পর্কে আলোচনা করা হয়েছে।

ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশে বেসরকারি ব্যাংকগুলোর মধ্যে একটি অন্যতম। তাই আপনাদের সুবিধার্থে কিভাবে খুব সহজেই ব্যাংক একাউন্ট খুলবেন এবং ব্যাংক খুলতে কি কি প্রয়োজনীয় তথ্য জানা প্রয়োজন এই সম্বন্ধে বিস্তার আলোচনা করেছি এই অনুচ্ছেদে।

সরকারি বেসরকারি ব্যাংকগুলোর মধ্যে ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশের একটি অন্যতম ব্যাংক। ইসলামী ব্যাংক বাংলাদেশের সকল জেলা শহর এবং স্থানীয় পর্যায়ে ইসলামী ব্যাংকের শাখা রয়েছে। সকল ব্যাংকে গ্রাহকদের জন্য সুযোগ-সুবিধা রয়েছে। ইসলামী ব্যাংকে গ্রাহকদের জন্য আলাদা সুযোগ সুবিধা রয়েছে যা আপনাকে মুগ্ধ করবে।

অনলাইনে ইসলামি ব্যাংক একাউন্ট খোলার নিয়ম (অ্যাপ, ওয়েবসাইট)
অনলাইনে ইসলামি ব্যাংক একাউন্ট খোলার নিয়ম (অ্যাপ, ওয়েবসাইট)

ইসলামী ব্যাংকে গ্রাহকরা টাকা সঞ্চয় সহ ঋণ গ্রহণ করতে পারে। এই ব্যাংকের টাকা লেনদেন খুবই স্বচ্ছ এবং নিরাপত্তার সাথে গ্রাহকের সাথে সম্পর্ক বজায় রেখে দীর্ঘদিন ধরে এই ব্যাংক গ্রাহক সেবা দিয়ে আসছে। আজকে এই অনুচ্ছেদে ইসলামী ব্যাংক সম্পর্কিত তথ্য এবং কিভাবে আপনি ইসলামিক ব্যাংকের অ্যাকাউন্ট খুলবেন এ নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করেছি।

Related Articles

ইসলামী ব্যাংক একাউন্ট খোলার নিয়ম ২০২৪

আপনি কি ইসলামিক ব্যাংকে আপনার একটি অ্যাকাউন্ট খুলতে চান। ইসলামিক ব্যাংক গ্রাহকদের সুযোগ সুবিধা বাংলাদেশের অন্যান্য ব্যাংকগুলোর তুলনায় অন্যতম। গ্রাহক সুবিধার্থে এই ব্যাঙ দীর্ঘদিন ধরে নিরাপদ এবং সুসম্পর্ক বজায় রাখে লেনদেন কার্যক্রম পরিচালনা করছে। ইসলামী ব্যাংকে একাউন্ট খোলার জন্য আপনাকে দুটি পদ্ধতির মাধ্যমে একাউন্ট খুলতে পারবেন।

ব্যাংকে সরাসরি প্রয়োজনীয় কাগজপত্র নিয়ে গিয়ে ব্যাংক কর্তৃপক্ষ কর্তৃক আপনি একাউন্ট খুলতে পারবেন। এছাড়া ঘরে বসে অনলাইনে খুব সহজেই আপনি একাউন্ট খুলতে পারবেন ইসলামী ব্যাংকের। তাই আজকের এই অনুচ্ছেদে আপনাদের সুবিধার্থে ইসলামী ব্যাংক একাউন্ট খোলার দুটি পদ্ধতি আলোচনা করা হয়েছে।

সরাসরি ইসলামী ব্যাংকে একাউন্ট খোলার নিয়ম

আপনি ইসলামী ব্যাংকে আপনার একটি একাউন্ট খুলতে চান। হয়তো এই অ্যাকাউন্টটি আপনার সেভিং একাউন্ট বা ঋণ লেনদেনের ক্ষেত্রে প্রয়োজনের জন্য খুলতে পারেন। তাই ব্যাংক অ্যাকাউন্ট সরাসরি খুলতে আপনাকে অবশ্যই প্রয়োজনীয় কাগজপত্র নিয়ে নিকটবর্তী কোন ব্যাংকে গিয়ে আপনার অ্যাকাউন্ট খুলতে পারেন।

ইসলামী ব্যাংক একাউন্ট ওপেন করতে হলে আপনাকে প্রয়োজনীয় কাগজপত্র ডকুমেন্ট নিয়ে গিয়ে ব্যাংক একাউন্ট ওপেন করতে হবে। এজন্য প্রয়োজনে কাগজপত্র নিচে উল্লেখ করা হলো।

অনলাইনে ইসলামী ব্যাংক একাউন্ট খোলার নিয়ম
অনলাইনে ইসলামী ব্যাংক একাউন্ট খোলার নিয়ম

ইসলামী ব্যাংক একাউন্ট খুলতে প্রয়োজনীয় কাগজপত্র

  1. আবেদনকারীকে অবশ্যই দুই কপি রঙ্গিন ছবি নিয়ে আসতে হবে।
  2. আপনার জাতীয় পরিচয় পত্রের এক কপি ফটোকপি যদি জাতীয় পরিচয় পত্র না থাকে তবে জন্ম নিবন্ধন কার্ড এর ফটোকপি প্রয়োজন হবে।
  3. এনআইডি শিক্ষার্থীদের ব্যাংক একাউন্ট খুলতে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ডকুমেন্ট প্রয়োজন হয়
  4. নমির ছবি প্রয়োজন এক কপি।
  5. নমিনির আইডি কার্ডের ফটোকপি।
  6. অর্থের উৎস কি উল্লেখ করতে হবে।
  7. মোবাইল নাম্বার অবশ্যই যে মোবাইলটি সচল রয়েছে সেই নাম্বারটি দিতে হবে।

উল্লেখিত ডকুমেন্টগুলো আপনাকে ইসলামিক ব্যাংক একাউন্ট খুলতে প্রয়োজন হবে। তাই অবশ্যই ব্যাংক একাউন্ট খুলতে আপনাকে অবশ্যই এ সকল কাগজপত্র নিয়ে ইসলামী ব্যাংক একাউন্ট খোলার জন্য ব্যাংকে আসতে হবে।

ইসলামিক ব্যাংক একাউন্ট খোলার ধাপসমূহ

ইসলামী ব্যাংক একাউন্ট ওপেন করতে আপনাকে অবশ্যই ইসলামী ব্যাংক কর্তৃক একটি ফরম পূরণ করতে হবে। তাই আজকের এই অনুচ্ছেদে ইসলামী ব্যাংক একাউন্ট খোলার জন্য যে সকল ধাপ আপনাকে অনুসরণ করতে হবে তা নিচে উল্লেখ করলাম ।

প্রথম ধাপ: আপনাকে অবশ্যই আপনার নিকটবর্তী স্থানীয় ইসলামী ব্যাংকে গিয়ে সরাসরি ব্যাংক এজেন্ট এর সাথে অ্যাকাউন্ট খোলা বিষয় নিয়ে কথা বলতে হবে। ইসলামী ব্যাংক কর্তৃক এজেন্টের মাধ্যমে আপনি জানতে পারবেন অ্যাকাউন্ট খোলার জন্য প্রয়োজনীয় কি কি কাগজপত্র প্রয়োজন।

দ্বিতীয় ধাপ: ইসলামী ব্যাংক এজেন্ট কর্তৃক আপনাকে অবশ্যই একটি অ্যাকাউন্ট খোলার জন্য ফরম প্রদান করা হবে। ফর্মে উল্লেখিত যে সকল তথ্য আপনার কে কাছে চেয়েছি সে সকল তথ্য সঠিকভাবে পূরণ করে নিতে হবে। জাতীয় পরিচয় পত্র থাকলে ফর্মটিতে জাতীয় পরিচয় পত্রের নাম্বার থাকলে দিতে হবে বা আপনি অবশ্যই আপনার জাতীয় পরিচয় পত্র না থাকলে জন্ম নিবন্ধন দিয়ে পূরণ করতে পারবেন।

তৃতীয় ধাপ :ফর্মটি পূরণ হয়ে গেলে ব্যাংকের এজেন্ট কর্তৃক উক্ত ফর্মটি জমা দিতে হবে এবং এজেন্ট কর্তৃক যে সকল কাগজপত্র চেয়েছি সে সকল কাগজপত্র উক্ত ফর্মটির সাথে বিনা করে জমা দেন।

চতুর্থ ধাপ: আপনি কোন ধরনের অ্যাকাউন্ট খুলতেছেন সেই অনুযায়ী ব্যাংক কর্তৃক একটি নির্দিষ্ট চার্জ ধার্য করা হয়েছে। তাই একান্ত খুলতে আপনাকে অবশ্যই সেই অনুযায়ী চার্জ দিতে হবে।

পঞ্চম ধাপ :এ পর্যায়ে ইসলামী ব্যাংক এজেন্ট কর্তৃক আপনার সকল কাগজপত্র যাচাই করে যদি সঠিক তথ্য দিয়ে থাকেন তাহলে আপনাকে একটি অ্যাকাউন্ট খুলে দেবেন।

ষষ্ঠ ধাপ: সম্পর্ক আপনার অ্যাকাউন্ট খোলা হয়ে গেলে ফর্মে উল্লেখিত উত্তম মোবাইল নাম্বারটিতে একটি কোড পাঠানো হবে সেই কোডটি দিয়ে আপনি আপনার এটিএম কার্ড তৈরি করতে পারবেন।

এভাবেই আপনি ইসলামী ব্যাংক এজেন্ট কর্তৃক সরাসরি ইসলামী ব্যাংকে গিয়ে আপনার একাউন্ট খুলতে পারবেন।

ইসলামী ব্যাংকের নীতিমালা

প্রত্যেকটি ব্যাংকের নির্দিষ্ট কিছু নীতিমালা রয়েছে। সরকারিভাবে সরকারি ব্যাংক হোক না কেন এ সকল ব্যাংক তাদের নির্দিষ্ট অনুশাসন ও নীতিমালার ওপর টিকে থাকে। আমি ব্যাংক যে সকল নীতিমালা অনুসরণ করে টিকে রয়েছি আজকের এই অনুচ্ছেদে তা উল্লেখ করা হয়েছে। ইসলামী ব্যাংকের একজন গ্রাহককে অবশ্যই সেই ব্যাংকের নীতিমালা জানা খুবই প্রয়োজন। তাই ইসলামী ব্যাংকে নীতিমালা নিচে উল্লেখ করা হলো।

  1. সলামী ব্যাংক ইসলামী অনুশাসন অনুযায়ী পরিচালিত।
  2. ইসলামী ব্যাংকে সব ধরণের লোনে সুদ গ্রহণ করা হয় না।
  3. ইসলামী ব্যাংকের ব্যাংকিং সেবাখাত সম্পূর্ণ ইসলামী শরিয়াহ অনুযায়ী পরিচালিত হয়।
  4. ইসলামী ব্যাংক চুক্তিতে তার নীতিমালা গ্রহণ করে থাকে। তা সম্পূর্ণ ইলামিক পদ্ধতিতে।
  5. ইসলামী ব্যাংক লোন প্রদানের পূর্বে যাচাই-বাছাই করে থাকে। ইসলামী ব্যাংকের নীতিমালার বাইরে কোন লোন সুবিধা থাকলে, তা গ্রহণ করা সম্পূর্ণ নিষিদ্ধ।
  6. ইসলামী ব্যাংকে লোন গ্রহীতা না বলে বিনিয়োগকারী হিসেবে বিবেচনা করা হয়। ব্যক্তিগত অর্থ সঞ্চয়ের বিশ্বস্ত ব্যাংক হলো ইসলামি ব্যাংক। আপানার টাকা সঞ্চয়ের জন্য কোন ব্যাংক খুঁজে থাকেন তাহলে ইসলামী ব্যাংকে যোগাযোগ করুন। আর সেখানেই একাউন্ট খুলতে পারেন। পারবেন।

অনলাইনে ইসলামী ব্যাংক একাউন্ট খোলার নিয়ম

এখন ডিজিটাল বাংলাদেশে খুব সহজেই ঘরে বসেই যে কোন ব্যাংকের একাউন্ট খোলা যায়। তারই পরিপ্রেক্ষিতে অনলাইনে আপনারা খুব সহজে ইসলামী ব্যাংক অ্যাকাউন্ট খুলতে পারবেন। ইসলামী ব্যাংকের অ্যাকাউন্ট খোলার জন্য আপনাকে আপনার এলাকায় অবস্থিত ইসলামী ব্যাংক এজেন্ট কর্তৃক খুলতে পারেন অথবা অনলাইনে স্মার্ট ফোন বা কম্পিউটারের মাধ্যমে একাউন্ট খুলতে পারবেন।

আপনাদের সুবিধার্থে আজকে এই অনুচ্ছেদে অনলাইনে ইসলামী ব্যাংক একাউন্ট কিভাবে খুলবেন এ নিয়ে আমরা বিস্তার কিছু তথ্য শেয়ার করেছি। ইসলামী ব্যাংক একাউন্ট খোলার জন্য আপনাকে অনলাইনে একটি app লিংক দেওয়া হয়েছে এই অ্যাপ লিংক থেকে আপনি খুব সহজেই ইসলামী ব্যাংক একাউন্ট খুলতে পারবেন।

অনলাইনে ইসলামী ব্যাংক একাউন্ট খোলার নিয়ম
অনলাইনে ইসলামী ব্যাংক একাউন্ট খোলার নিয়ম

অনলাইনে ইসলামী ব্যাংক একাউন্ট খোলার নিয়মের ধাপসমূহ

প্রথম ধাপ: ইসলামী ব্যাংকে অনলাইনে একাউন্ট খুলতে হলে আপনাকে প্রথমে আপনার কম্পিউটার বা ফোনে সেলফিন অ্যাপটি ওপেন করতে হবে। সেলফি এফবিতে আপনাকে সর্বপ্রথম আপনার একটি একাউন্ট খুলতে হবে যদি আগের কোন একাউন্ট থাকে তাহলে আর অ্যাকাউন্ট খুলতে হবে না।
দ্বিতীয় ধাপ : আপনার ফোনে সেলফিন অ্যাপটি প্রবেশ করে প্রথম পেজেই একটু নিচে লক্ষ্য করলে আপনি দেখতে পাবেনopen A/C অপশন সেটিতে চাপ দিতে হবে।

তৃতীয় ধাপ :এখানে আপনাকে আপনার সেলফিন একাউন্ট খোলার যে পিন কোড ছিল সেই পিন কোডটি দিতে হবে এবং সাবমিট করতে হবে।
চতুর্থ ধাপ :এখানে আপনাকে আপনি কোন ধরনের অ্যাকাউন্ট খুলতে চান সেই অনুযায়ী প্যাকেজ নির্বাচন করতে হবে। ইসলামী ব্যাংকে চার ধরনের অ্যাকাউন্ট খোলার সুযোগ রয়েছে তাই আপনাকে আপনার পছন্দের মত একাউন্ট খোলার জন্য নির্বাচন করে সিলেক্ট করতে হবে।

পঞ্চম ধাপ :এর পরবর্তীতে আপনার সামনে একটি ফরম ওপেন হবে। উল্লেখিত এই ফর্মটি তে আপনার যাবতীয় সকল তথ্য সঠিকভাবে দিয়ে ফর্মটি পূর্ণ করতে হবে। ফর্মটি অবশ্যই অনলাইন ভিত্তিক ।ফরমটিতে আপনার জাতীয় পরিচয় পত্রের নাম্বার দিতে হবে তবে যদি জাতীয় পরিচয় পত্র নাম্বার না থাকে তাহলে আপনি জন্ম নিবন্ধন নাম্বার ব্যবহার করতে পারবেন।

ষষ্ঠ ধাপ :এ পর্যায়ে আপনার ফর্মটি পূরণ করা হলে একবার ভালোভাবে চেক করে নিতে হবে। সকল সঠিক তথ্য দিয়ে আপনাকে অবশ্যই ফরমটি পূরণ করতে হবে ।পরবর্তীতে আপনাকে নেক্সট অপশন এ চাপ দিতে হবে। নেক্সট অপশন এ চাপ দিলেই আপনার অ্যাকাউন্ট খুলে যাবে এবং আপনার অ্যাকাউন্ট ৭২ ঘণ্টার মধ্যেই সক্রিয় হয়ে যাবে।

সপ্তম ধাপ : কিংবা একান খোলার পর আপনি যদি এটিএম কার্ড বা চেক বই ইস্যু সংগ্রহ করেন তাহলে অবশ্যই আপনাকে আপনার এলাকায় অবস্থিত ইসলামী ব্যাংক কর্তৃক যোগাযোগ করে সকল ডকুমেন্ট নিয়ে ওই ব্রাঞ্চে আপনাকে এটিএম কার্ড ইস্যু সংগ্রহ করতে হবে।

এভাবেই আপনি খুব সহজেই অনলাইনে ইসলামী ব্যাংক একাউন্ট খুলতে পারবেন।

ইসলামী ব্যাংক একাউন্ট ব্যালেন্স চেক করার নিয়ম

আপনার একাউন্ট তৈরি হয়ে গেলে আপনি খুব সহজেই আপনার একাউন্টে কত টাকা রয়েছে এসএমএসের মাধ্যমে তার চেক করতে পারবেন। আপনার সুবিধার্থে আমি নিজের একটি উদাহরণ দিলাম।

IBB <space> BAL <space> Send to: 26969

অর্থাৎ IBB BAL লিখে পাঠিয়ে দিতে হবে 26969 নাম্বারে। এভাবে ব্যালান্স চেক করে নিতে পারবেন।

ইসলামী ব্যাংক কারেন্ট একাউন্ট খোলার নিয়ম

ইসলামী ব্যাংক কর্তৃক ব্যবসায়ীদের জন্য একটি গুরুত্বপূর্ণ সেবা প্রদান করা হয়। ব্যবসায়ীরা খুব সহজেই ইসলামী ব্যাংকে কারেন্ট একাউন্ট খুলতে পারবে। একাউন্টের মাধ্যমে ইসলামী ব্যাংক কে ব্যবসায়ীরা গ্রহণ এবং যাবতীয় লেনদেন সম্পর্কিত কাজ করতে পারবে।

ইসলামী ব্যাংক কর্তৃক কারেন্ট একাউন্ট খোলার জন্য ইসলামী ব্যাংকের ব্রাঞ্চে গিয়ে আপনি খুব সহজেই ইসলামী ব্যাংক কারেন্ট একাউন্ট খুলতে পারবেন। কারেন্ট একাউন্ট খুলতে আপনাকে যে সকল ডকুমেন্ট দিতে হবে তা নিচে উল্লেখ করা হলো।

  • কমপক্ষে আপনাকে প্রথমে ১০০০ টাকা ডিপোজিট করতে হবে।
  • খুলতে আপনাকে দুই কপি সত্যায়িত পাসপোর্ট সাইজের ছবি।
  • যে ব্যক্তি একাউন্ট খুলবে তার এনআইডি কার্ড পাসপোর্ট চেয়ারম্যানের সার্টিফিকেট প্রভৃতি প্রয়োজন হয়।
  • অ্যাকাউন্ট হোল্ডার দ্বারা সত্যায়িত করা নমিনির এক কপি পাসপোর্ট সাইজের ছবি প্রয়োজন।
  • নমিনির এনআইডি কার্ডের ফটোকপি এবং একাউন্ট হোল্ডার এর স্বাক্ষর।

এ সকল যাবতীয় ডকুমেন্টগুলো জমা দিয়ে একা ব্যাংক কর্তৃক কর্মরত কর্মকর্তা দ্বারা আপনারা ব্যাংক একাউন্ট খুলতে পারবেন।

ইসলামী ব্যাংকে স্টুডেন্ট একাউন্ট

ইসলামী ব্যাংকে খুব সহজেই সেভিং একাউন্ট খোলা যায়। গ্রাহকদের একটু অন্যতম সেবার মধ্যে স্টুডেন্ট একাউন্ট উল্লেখযোগ্য। ইসলামী ব্যাংকে ই প্রথম স্টুডেন্ট একাউন্ট খোলার নিয়ম চালু করেছে।

ইসলামী ব্যাংকে স্টুডেন্ট একাউন্ট খুলতে সর্বনিম্ন ১০০ টাকা জমা দিতে হবে ডিপোজিট করার জন্য। শিক্ষার্থীকে স্টুডেন্ট একাউন্ট খোলার জন্য ব্যাংক কর্তৃক সকল ডকুমেন্ট জমা দিয়ে একাউন্টটি খুলতে হবে। স্টুডেন্ট একাউন্ট খুলতে প্রয়োজনীয় যে সকল ডকুমেন্ট প্রয়োজন তা নিচে উল্লেখ করা হলো।

  • অভিভাবক এবং শিক্ষার্থীকে প্রত্যেকের দুই কপি পাসপোর্ট সাইজের ছবি প্রয়োজন হবে। তবে শিক্ষার্থীর বয়স যদি ১৮ বছরের বেশি হয় তবে অভিভাবকের ছবি লাগবে না।
  • অ্যাকাউন্ট হোল্ডার দ্বারা সত্যায়িত করা নমিনির এক কপি পাসপোর্ট সাইজের ছবি প্রয়োজন।
  • গ্রাহকের এনআইডি কার্ড পাসপোর্ট চেয়ারম্যান সার্টিফিকেট স্কুল অথরিটি কর্তৃক সার্টিফিকেট এর মধ্যে যেকোনো একটি ফটোকপি জমা দিতে হবে।
  • কমপক্ষে ১০০ টাকা ডিপোজিট করতে হবে
  • গ্রাহকের স্বাক্ষর দিতে হবে।
    সকল শিক্ষার্থীর বয়স ১৮ বছরের কম তারা টাকা উত্তোলন করতে অবশ্যই তাদের অভিভাবকের প্রয়োজন হবে তবে যে সকল শিক্ষার্থীর 18 বছর বেশি তারা নিজেরাই টাকা উত্তোলন করতে পারবে।

পরিশেষে
আজকের এই অনুচ্ছেদে ইসলামী ব্যাংক একাউন্ট কিভাবে খুলবেন এ নিয়ে বিস্তারিত তথ্য শেয়ার করেছি। আপনারা যদি আমাদের এই পোস্টটি মনোযোগ সকলে পড়েন তাহলে খুব সহজেই কিভাবে ব্যাংক অ্যাকাউন্ট খুলবেন এ নিয়ে বিস্তারিত তথ্য সংগ্রহ করে আপনি অনলাইনে বা অনলাইনে আপনার একাউন্টটি খুলতে পারবেন।

টাকা সেভিং বা নানা কারণে আমাদের  জীবনে ব্যাংক একাউন্টের প্রয়োজন হয়। তাই এই অনুচ্ছেদ পড়ে আপনারা ব্যাংক অ্যাকাউন্ট খুলতে পারবেন খুব সহজেই। ভালো থাকবেন সুস্থ থাকবেন সকলের জন্য রইল শুভকামনা।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *